বরিশালে বিএনপির গণসমাবেশের আগে দুই দিনের বাস ধর্মঘট


প্রকাশিত : ২৭ অক্টোবর ২০২২

খুলনায় বিএনপির বিভাগীয় গণসমাবেশকে ঘিরে দুই দিন গণপরিবহন ধর্মঘট পালন করেছিলেন পরিবহন মালিকরা। এবারও বরিশাল বিএনপির বিভাগীয় গণসমাবেশের একদিন আগে থেকে মহাসড়কে নসিমন, করিমন ও থ্রি-হুইলারসহ অবৈধ যানচলাচল বন্ধের দাবিতে আগামী ৪ ও ৫ নভেম্বর বাস ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে বরিশাল জেলা বাস মালিক গ্রুপ। বুধবার (২৬ অক্টোবর) দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিভাগীয় বাস মালিক সমিতির যুগ্ম সম্পাদক ও জেলা বাস মালিক গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক কিশোর কুমার দে।

তবে বিএনপি অভিযোগ, আগামী ৫ নভেম্বরের গণসমাবেশ বাধাগ্রস্ত করতে ক্ষমতাসীন দল বাস, লঞ্চ, খেয়া বন্ধ করে প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি করতে চাচ্ছে। মানুষ সাঁতরে কিংবা হেঁটে হলেও সমাবেশে আসবে বলে দাবি করছেন নেতারা। এদিকে আওয়ামী লীগ নেতারা এ ধরনের অভিযোগ নাকচ করে দিয়ে বলেছে, বিএনপি শান্ত বরিশালকে অশান্ত করতে চাইলে যা করার তাই করবে।

কিশোর কুমার দে বলেন, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয় থেকে মহাসড়কে থ্রি-হুইলার চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করলেও অবৈধভাবে এসব যানবাহন চলছে মহাসড়কে। পদ্মা সেতু চালুর পর ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কে দূরপাল্লার বাসের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় থ্রি-হুইলারের কারণে প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনা ঘটছে। যাত্রী সাধারণের নির্বিঘ্নে ও নিরাপদ যাতায়াতের লক্ষ্যে ৩ নভেম্বরের মধ্যে থ্রি-হুইলার চলাচল বন্ধ না করা হলে ৪ নভেম্বর থেকে ৫ নভেম্বর পর্যন্ত বরিশাল কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল নথুল্লাবাদ থেকে আঞ্চলিক, দূরপাল্লারসহ সব ধরনের বাস-মিনিবাস চলাচল বন্ধ থাকবে।

তিনি আরও বলেন, বিএনপি কি এবং কবে সমাবেশ করছে, তা তারা জানেন না। এ বিষয়ে বিএনপির বরিশাল বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক বিলকিস আক্তার জাহান শিরিন বলেন, বিএনপির বরিশাল বিভাগীয় গণসমাবেশ বানচাল করতে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, গত ২২ অক্টোবর খুলনার বিভাগীয় গণসমাবেশের আগেও সেখানকার পরিবহন মালিক ও শ্রমিকরা একই দাবিতে বাস ধর্মঘটের ডাক দেন। এর আগে ১৫ অক্টোবরের ময়মনসিংহের বিভাগীয় গণসমাবেশের আগেও বাস ধর্মঘটের ঘটনা ঘটেছিল।

আপনার মতামত লিখুন :

এই বিভাগের সর্বশেষ